অকারনে শরীরের যে অঙ্গ স্পর্শ না করাই ভালো!

bdnari8487673789আমাদের শরীরের সবথেকে বেশি জীবাণু থাকে হাতে। কারণ হাত দিয়েই আমরা সব কাজ করে থাকি। ফলে নানা জীবাণুর বাদ আমাদের হাতে। তাই হাত পরিষ্কার না করে শরীরের সব জায়গায় হাত দেওয়ার মাশুল অনেক বড় হতে পারে। জেনে নিন হাত না ধুয়ে শরীরের কোন কোনও অংশে হাত দেওয়া উচিত নয়!

* চোখ: চোখ হল শরীরের সবচেয়ে সেনসিটিভ অঙ্গ। আর আমরা কোনও কিছু তোয়াক্কা না করেই আঙুল দিয়ে চোখ ডলি। অগত্যা হাতের জীবাণু সোজা গিয়ে আক্রমণ করে চোখে। ফলে এলার্জি থেকে চোখের নানান সমস্যা দেখা দেয়। তাই হাত পরিষ্কার না করে অকারণে চোখে হাত দেবেন না। আর যদি মনের ভুলে দিয়ে বসেন তাহলে চোখে জলের ঝাপটা দিন।

* মুখ: মুখের চামড়া অত্যন্ত স্পর্শকাতর। তাই যখন-তখন মুখে হাত দেওয়া যাবে না। ত্রতে মুখে ব্রণ, চুলকানি নানান সমস্যা আসতে পারে।

* নাক: চোখের মতো নাকও খুব সেনসিটিভ অঙ্গ। জানেন সামান্য আঘাতেই নাক থেকে রক্ত ঝরতে পারে। তাই নাকের মধ্যে আঙুল দেওয়া একেবারেই উচিৎ নয়। এছাড়া এটা খুব খারাপ অভ্যাসও। এতে অনেকে আপনাকে নোংরাও ভাবতে পারে।

* কান: কানে আঙুল কিংবা কাঠি দিয়ে চুলকানোর আরাম অব্যক্ত। কিন্তু জানেন কি? কানের মধ্যে আঙুল কিংবা কাঠি দিলে, কানের পর্দা ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। এমনকি পর্দা ফেটেও যেতে পারে।

[ বিঃ দ্রঃ প্রতিদিন মজার মজার রান্নাকরার অসাধারন সব রেসিপি এবং রুপ লাবণ্য টিপস আপনার ফেসবুক টাইমলাইনে পেতে আমাদের পেইজে লাইক দিন!

আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিতে এইখানে ক্লিক করুন

Updated: August 25, 2016 — 4:44 pm
bangladeshi women's lifestyle © 2015-2016, ই-মেইলঃ bdnari.com@gmail.com Serverdokan TEAM